আফিম তবুও ভালো, ধর্ম সে তো হেমলক বিষ – রুদ্র মুহম্মদ শহীদুল্লাহ

যেমন রক্তের মধ্যে জন্ম নেয় সোনালি অসুখ
তারপর ফুটে ওঠে ত্বকে মাংসে বীভৎস ক্ষরতা।
জাতির শরীরে আজ তেম্নি দ্যাখো দুরারোগ্য ব্যাধি
ধর্মান্ধ পিশাচ আর পরকাল ব্যবসায়ি রূপে
ক্রমশঃ উঠছে ফুটে ক্ষয়রোগ, রোগেরপ্রকোপ
একদার অন্ধকারে ধর্ম এনে দিয়েছিল আলো,
আজ তার কংকালের হাড় আর পঁচা মাংসগুলো
ফেরি কোরে ফেরে কিছু স্বার্থাণ্বেষী ফাউল মানুষ-
সৃষ্টির অজানা অংশ পূর্ণ করে গালগল্প দিয়ে।
আফিম তবুও ভালো, ধর্ম সে তো হেমলকবিষ।
ধর্মান্ধের ধর্ম নেই, আছে লোভ, ঘৃণ্য চতুরতা,
মানুষের পৃথিবীকে শত খণ্ডে বিভক্ত করেছে
তারা টিকিয়ে রেখেছে শ্রেণীভেদ ঈশ্বরের নামে।
ঈশ্বরের নামে তারা অনাচার করেছে জায়েজ।
হা অন্ধতা! হা মুর্খামি! কতোদূর কোথায় ঈশ্বর!
অজানা শক্তির নামে হত্যাযজ্ঞ কতো রক্তপাত,
কত যে নির্মম ঝড় বয়ে গেল হাজার বছরে!
কোন্ সেই বেহেস্তের হুর আর তহুরাশরাব?
অন্তহীন যৌনাচারে নিমজ্জিত অনন্ত সময়?
যার লোভে মানুষও হয়ে যায় পশুর অধম।
আর কোন দোজখ বা আছে এর চেয়ে ভয়াবহ
ক্ষুধার আগুন সে কি হাবিয়ার চেয়েখুব কম?
সে কি রৌরবের চেয়ে নম্র কোন নরোমআগুন?
ইহকাল ভুলে যারা পরকালে মত্ত হয়েআছে
চলে যাক সব পরপারে বেহেস্তে তাদের
আমরা থাকবো এই পৃথিবীর মাটি জলে নীলে,
দ্বন্দ্বময় সভ্যতার গতিশীল স্রোতের ধারায়
আগামীর স্বপ্নে মুগ্ধ বুনে যাবো সমতার বীজ

7 thoughts on “আফিম তবুও ভালো, ধর্ম সে তো হেমলক বিষ – রুদ্র মুহম্মদ শহীদুল্লাহ

  1. বিচ্ছেদের পর রুদ্র এবং তসলিমা
    পাল্টাপাল্টি দুটো কবিতা লেখে।
    তসলিমা শুরু করে দুধরাজ কবিতাটি দিয়ে,
    উত্তরে রুদ্র লেখে সামঞ্জস্য।
    তসলিমার ‘দুধরাজ’
    কেউ শখ করে পাখি পোষে
    কেউ-বা কুকুর
    আর আমি এক-পা এগিয়ে গিয়ে
    একজন কবিকে স্বগৃহে শখ
    করে পালন করেছি
    পাখা নেই, তবু সে উড়াল দেবে
    কেশরের কিচ্ছু নেই
    তবু সে ঘাড়ের রোঁয়া
    ফুলিয়ে দাঁড়াবে
    খেতে দিই
    বুকের বল্কলে ঢেকে বলি
    ঘুম যাও/কবি কি ঘুমায়?
    বিড়াল-নরম হাত
    থেকে বের হয় তার ধারালো নখর
    আঁচড়ে কামড়ে আমাকেই আহত করে
    বাদুড়ের মতো ঝুলে থাকে
    আমারই পাঁজরায়
    কবি কি ঘুমায়?
    তারচে’ কুকুর পোষা ভাল
    ধূর্ত যে শেয়াল, সে-ও পোষ মানে
    দুধকলা দিয়ে আদরে-আহ্লাদে এক কবিকে
    পুষেছি এতকাল
    আমাকে ছোবল মেরে দ্যাখো সেই কবি
    আজ কীভাবে পালায়।

  2. Dear sir,
    গুস্তাখি মুযাফ হো , আমি আপনার দুটো মূল্যবান কবিতার ভাব নিয়ে হিন্দি ভাষা তে f/b পোস্ট করেছি আপনার কবিতার রচনা খুব সুন্দর ভগবান আপনাকে আরও খ্যাতিমান করুন
    মার্জনা করবেন বাংলা ভাষার হুবহু ট্রান্সলেশন করতে পারলাম না কারণ কবির কল্পনা হারিয়ে যাচ্ছিলো .
    নমস্কার
    প্রদীপ কুমার মৈত্র

Leave a Reply

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out / পরিবর্তন )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out / পরিবর্তন )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out / পরিবর্তন )

Google+ photo

You are commenting using your Google+ account. Log Out / পরিবর্তন )

Connecting to %s